সর্বশেষ সংবাদ
Home / পরিবেশ প্রকৃতি / ঈদে যেমন থাকবে আবহাওয়া

ঈদে যেমন থাকবে আবহাওয়া

শেরপুর ডেস্ক: ঈদুল আজহার আর মাত্র দুই দিন বাকী। কোরবানির এই ঈদ ঘিরে মুসলমানদের আগ্রহের শেষ নেই। মাঠে নামাজ শেষ করেই শুরু হয় পশু কোরবানির পালা। দিনভর এটা নিয়েই ব্যস্ত সময় পার করে সবাই।

ঈদের আগে ও পরে মিলিয়ে তিনদিন দেশের উত্তরপূর্ব ও উত্তরপশ্চিমাঞ্চলে বৃষ্টিপাতের প্রবণতা বাড়তে পারে। রাজধানী ঢাকাতেও বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে বলে মনে করছেন আবহাওয়াবিদরা।

মৌসুমী বায়ু মোটামুটি সক্রিয় হওয়ায় দেশের বিভিন্ন এলাকায় বেড়েছে বৃষ্টিপাতের প্রবণতা। তবে খুলনা ও রাজশাহী বিভাগের তাপমাত্রা অন্যান্য জায়গার তুলনায় এখনো বেশি হওয়ায় খুলনা বিভাগের অধিকাংশ জেলা এবং রাজশাহী বিভাগের কয়েকটি জেলার ওপর দিয়ে মৃদু তাপদাহ বয়ে যাচ্ছে।

শুক্রবার (১৪ জুন) খুলনায় দেশের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ৩৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস রেকর্ড করেছে আবহাওয়া অধিদপ্তর।

আবহাওয়াবিদ ড. মুহাম্মদ আবুল কালাম মল্লিক দ্য বলেন, ‘১৬ থেকে ১৮ জুন পর্যন্ত রংপুর, ময়মনসিংহ, সিলেট বিভাগের অধিকাংশ জায়গায় হালকা থেকে মাঝারী এবং মাঝারী ধরনের ভারী বৃষ্টি হতে পারে। এছাড়া, চট্টগ্রাম বিভাগের বেশিরভাগ জায়গায় বৃষ্টির পাশাপাশি কোথাও কোথাও ঝড়ো হাওয়া বয়ে যেতে পারে।’ তিনি বলেন, ‘ঈদের দিন ঢাকার আকাশ মূলত মেঘলা থাকতে পারে। সেই সঙ্গে গুড়িগুড়ি বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে। দুপুর ১২টার পরে বৃষ্টিপাতের প্রবণতা বাড়তে পারে।’

আবহাওয়া অধিদপ্তরের আরেক আবহাওয়াবিদ মো. বজলুর রশিদ বলেন, ‘ঢাকায় বৃষ্টি হবে, তবে টানা বৃষ্টি হবে না বলে আমরা মনে করছি। আগামী ১৯ জুনের পরে সারা দেশে বৃষ্টি বাড়ার সম্ভাবনা রয়েছে।’

‘আমরা ধারণা করছি, মৌসুমি বায়ু আরো বেশি সক্রিয় হবে এবং বৃষ্টিপাতের পরিমাণ বাড়বে। পর্যাপ্ত বৃষ্টি হলে এই দুই বিভাগে আর তাপদাহ থাকবে না।’

পূর্বাভাস অনুসারে, আজও রাজধানী ঢাকার কিছু কিছু জায়গায় বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে।

আবহাওয়ার পূর্বাভাসে বলা হয়, ‘সক্রিয় মৌসুমি বায়ুর প্রভাবে শুক্রবার এবং শনিবার ময়মনসিংহ ও সিলেট বিভাগের কোথাও কোথাও ভারী থেকে অতি ভারী বর্ষণ হতে পারে।’

পূর্বাভাস আরো বলছে, এসব এলাকায় পশ্চিম-উত্তরপশ্চিম দিক থেকে ঘণ্টায় ৪৫-৬০ কিলোমিটার বেগে দমকা হাওয়া বয়ে যাওয়ার আশঙ্কা রয়েছে। দুর্ঘটনা এড়াতে নদীবন্দরগুলোতে এক নম্বর সতর্ক সংকেত দেখাতে বলা হয়েছে।

বন্যা পূর্বাভাস ও সতর্কীকরণ কেন্দ্রের নির্বাহী প্রকৌশলী সরদার উদয় রায়হান জানিয়েছেন, দেশের উত্তর-পূর্বাঞ্চলের সব প্রধান নদীগুলোর পানির সমতল বাড়ছে। এই এলাকায় উজানে ভারী থেকে অতিভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস রয়েছে, ফলে আগামী ৭২ ঘণ্টায় তিস্তা, ধরলা, দুধকুমার এবং উত্তরপূর্বাঞ্চলের প্রধান নদীগুলোর পানির সমতল দ্রুত বেড়ে যাওয়ার আশঙ্কা আছে।

Check Also

দেশের ৫ বিভাগে অতি ভারী বৃষ্টির আভাস

শেরপুর নিউজ ডেস্ক: দেশের পাঁচ বিভাগে আগামী ৪৮ ঘণ্টায় ভারী থেকে অতি ভারী বর্ষণের আভাস …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

14 + 2 =

Contact Us