Home / স্বাস্থ্য / নতুন মাদক এলএসডি কতটা ভয়ংকর

নতুন মাদক এলএসডি কতটা ভয়ংকর

শেরপুর ডেস্কঃ বাংলাদেশে এক নতুন মাদকের সন্ধান মিলেছে। যার নাম ‘এলএসডি’ বা লাইসার্জিক অ্যাসিড ডাইথ্যালামাইড। সম্প্রতি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র হাফিজুর রহমানের রহস্যজনক মৃত্যুর ঘটনা তদন্তে নেমে নতুন এই ভয়ঙ্কর মাদকের সন্ধান পায় গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি)।
অনুসন্ধানে জানা গেছে, এলএসডি এক ধরনের বিভ্রম তৈরি করে। এটা সাধারণত জিভের নিচে রেখে সেবন করা হয়, আবার ইনজেকশানের মাধ্যমেও সেবন করা যায়।
এলএসডি কী? লাইসার্জিক অ্যাসিড ডাইথ্যালামাইড সাধারণত এলএসডি বা অ্যাসিড হিসেবে পরিচিত। এটি একটি অত্যন্ত শক্তিশালী হ্যালুসিনোজেনিক ড্রাগ। এটি লাইজারিক অ্যাসিড থেকে তৈরি, ছত্রাক থেকে উদ্ভূত যা রশ্মি এবং অন্যান্য শস্যের উপরে বৃদ্ধি পায়। এলএসডি সাধারণত ছোট ট্যাবলেট, ক্যাপসুল বা তরল আকারে বিক্রি হয়। তরল এলএসডি সাধারণত ব্লটার কাগজের মধ্যে যুক্ত করা হয় এবং ওই কাগজের মধ্যেই আলাদা আলাদাভাবে সেবনের জন্য সাজিয়ে রাখা হয়। বেশিরভাগ এলএসডি সেবনকারীরা এটি মুখ দিয়ে সেবন করেন। তবে এটি ইনজেকশন বা ড্রপ আকারে চোখ দিয়েও সেবন করা যায়।
এলএসডি ব্যবহারের জন্য শারীরিক এবং মানসিক উভয় ঝুঁকি রয়েছে। এলএসডি গ্রহণের পর সেবনকারী অদ্ভুত আচরণ করতে পারে, ভুল সিদ্ধান্ত নিতে পারে, নিজের উপর বা অন্যের উপর শারীরিক আঘাত করতে পারে।
এলএসডি ব্যবহারে খুব অপ্রীতিকর ঘটনাও ঘটতে পারে। ব্যবহারকারী আতঙ্কজনক চিন্তাভাবনা করতে পারে, নিজের উপর নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ফেলতে পারে, তার মধ্যে ব্যাপক উন্মাদনা বা মৃত্যুর ভয় দেখা দিতে পারে, এমনকি তীব্র হতাশাও লক্ষ্য করা যেতে পারে। এছাড়াও তার মধ্যে মানসিক অস্থিরতা দেখা দিতে পারে। এলএসডি ব্যবহারে উল্লেখিত ঝুঁকিগুলো এটি সেবনের এক বছর পরও পুনরায় হঠাৎ করে দেখা দিতে পারে।গবেষকরা পরামর্শ দিয়েছেন যে, এলএসডি গ্রহণের ফলে দুর্বল ব্যক্তিদের মধ্যে সিজোফ্রেনিয়ার সূত্রপাত ত্বরান্বিত হতে পারে।
এছাড়া যাদের সিজোফ্রেনিয়া বিকাশের ক্ষেত্রে জিনগত প্রবণতা রয়েছে তাদের ড্রাগের প্রতি বৃহত্তর মানসিক প্রতিক্রিয়া হওয়ার সম্ভাবনা বেশি রয়েছে। তাই এটি খুবই বিপজ্জনক।

Check Also

টিকার দুই ডোজে ৯৮ শতাংশ মৃত্যুঝুঁকি কমে

শেরপুর ডেস্কঃ করোনার দুই ডোজ টিকা আক্রান্ত রোগীকে মৃত্যুর হাত থেকে প্রায় ৯৮ শতাংশ সুরক্ষা …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

four × 1 =

Contact Us