Home / খেলাধুলা / চার রেকর্ডের অপেক্ষায় টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ

চার রেকর্ডের অপেক্ষায় টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ

শেরপুর নিউজ ডেস্ক: আর দুইদিন পরেই শুরু হচ্ছে বৈশ্বিক ক্রিকেটের বড় আসর আইসিসি টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ। আটলান্টিক পাড়ের যুক্তরাষ্ট্র এবং ক্যারিবিয়ান দ্বিপপুঞ্জে বসবে ক্রিকেটের জমজমাট এই আসর। পরের ২৮ দিন ক্রিকেটভক্তদের চোখ থাকবে মাঠ আর মাঠের বাইরের পরিসংখ্যানের দিকে। নজরে থাকবে রেকর্ড আর ক্রিকেটীয় সব রোমাঞ্চে।

গত ওয়ানডে বিশ্বকাপেই দেখা গিয়েছিল অনেকগুলো রেকর্ডের ভাঙ্গাগড়া। টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপেও তেমন কিছু দেখা যাবে এমন কিছু অপ্রত্যাশিত নয় মোটেই। তবে এবারের আসরে নিশ্চিতভাবেই হতে যাচ্ছে কিছু রেকর্ড। দেখে নেয়া যাক এমন কিছু রেকর্ড, যা দেখা যেতে এবারের আসরেই।

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে সবচেয়ে বেশি চার মারার কীর্তি এখন রয়েছে শ্রীলঙ্কা প্রাক্তন ক্রিকেটার মাহেলা জয়াবর্ধনের। তিনি টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে সব মিলিয়ে ১১১টি চার মেরেছেন। তবে এবারের আসরেই তাকে ছাড়িয়ে যেতে পারেন বিরাট কোহলি। জয়াবর্ধনের সামান্য পিছনেই রয়েছেন বিরাট কোহলি।

তিনি ১০৩টি চার মেরেছেন। আর ৯টি চার মারলেই লঙ্কান কিংবদন্তিকে টপকে যাবেন কোহলি। জয়াবর্ধনে এবং কোহলির পেছনে যিনি রয়েছেন তিনিও ভারতীয়। অধিনায়ক রোহিত শর্মা হাঁকিয়েছেন ৯১ চার। চারে আছেন অস্ট্রেলিয়ার ডেভিড ওয়ার্নার (৮৬)।

প্রথমবারের মতো বিশ্বকাপে আসছে ২০ দল। ওয়ানডে বা টি-টোয়েন্টি, যে কোনো বিবেচনাতেই এটি সবচেয়ে বেশি দেশের বিশ্বকাপ অংশগ্রহণ। দল বাড়ার কারণে বাড়ছে ম্যাচ খেলার সুযোগ। ভাঙতে পারে এক বেশি সবচেয়ে বেশি রান বা উইকেটের কীর্তিও।

একটি বিশ্বকাপে সর্বাধিক রানের নতুন কীর্তি দেখা যেতে পারে এবারে। ঠিক যেমনটা দেখা গিয়েছিল ওয়ানডে বিশ্বকাপে। এখনো পর্যন্ত ২০১৪ বিশ্বকাপে কোহলির করা ৩১৯ রান এক বিশ্বকাপে সবচেয়ে বেশি রানের রেকর্ড। আর উইকেটের বিচারে সবার ওপরে শ্রীলঙ্কার ওয়ানিন্দু হাসারাঙ্গা। ২০২১ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে নিয়েছিলেন ১৬ উইকেট।

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে সবচেয়ে বেশি ক্যাচের রেকর্ডও ভাঙতে পারে এবারেই। এখন পর্যন্ত ২৩টি ক্যাচ নিয়ে এবি ডিভিলিয়ার্স সবার উপরে রয়েছেন। ১৯টি ক্যাচ রয়েছে নিউজিল্যান্ডের ক্রিকেটার মার্টিন গাপ্টিলের। দু’জনেই এখন সাবেক।

দুজনের মাঝে রয়েছেন শেষ বিশ্বকাপ খেলতে আসা ডেভিড ওয়ার্নার। ২১টি ক্যাচ নিয়েছেন এই অজি ওপেনার। আর তিন ক্যাচের অপেক্ষা তার। রোহিত শর্মা এবং গ্লেন ম্যাক্সওয়েল নিয়েছেন ১৬টি করে ক্যাচ।

এখন পর্যন্ত কোনো দলই আইসিসি-র সব প্রতিযোগিতা একসঙ্গে জিততে পারেনি। অস্ট্রেলিয়ার সামনে সেই রেকর্ড গড়ার সুযোগ রয়েছে। তারা গত বছর আইসিসি বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ এবং এক দিনের বিশ্বকাপ জিতেছে। এ বার টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপও জিতলে নতুন নজির তৈরি করবে তারা।

বিশ্বকাপের জার্সি গায়ে এখনো মাঠে নামা হলো না বাংলাদেশের। দিন কয়েক আগেই আসন্ন টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ জার্সি উন্মোচন করেছে বাংলাদেশ। এ জার্সিতেই যুক্তরাষ্ট্রের বিপক্ষে আনুষ্ঠানিক প্রস্তুতি ম্যাচে। তবে ডালাসের প্রেইরি ভিউ স্টেডিয়ামে ঝড়ো আবহাওয়ার কারণে সেই ম্যাচটি পরিত্যক্ত হয়ে যায়।

ইন্টারনেটে ছড়িয়ে পড়া ছবিতে দেখা যায়, ঝড়ের তোপে স্টেডিয়ামের বড় স্ক্রিন ভেঙে গিয়েছে। আবহাওয়ার এমন নাজুক অবস্থায় বাংলাদেশ এবং যুক্তরাষ্ট্রের ম্যাচ পরিত্যক্ত ঘোষণা করা হয়। আর ডালাসের এমন পরিস্থিতি বিশ্বকাপের জন্যই কিছুটা শঙ্কার। কারণ, এই মাঠেই যে বিশ্বকাপের উদ্বোধনী ম্যাচ হওয়ার কথা রয়েছে।

যদিও ডালাসের প্রেইরি স্টেডিয়ামে এই মুহূর্তে চলছে সংস্কার কাজ। বিশ্বকাপে পরিপূর্ণ প্রস্তুত অবস্থায় এই স্টেডিয়াম পাওয়া যাবে বলে আশ্বাস সকলের। তবে আবহাওয়া কেমন থাকবে সেটাও এখন বড় প্রশ্ন। সবশেষ স্টেডিয়ামের পাশ দিয়ে যেই ঝড়টি গিয়েছিল তাতে স্টেডিয়ামের অর্ধেক অংশই নষ্ট হয়ে যায়। টর্নেডো, প্রচণ্ড বজ্রপাত হয় এবং প্রতি ঘণ্টায় ৮০ মাইল বেগে বাতাস বয়েছিল বলে জানানো হয়। এর ফলে স্টেডিয়ামের একটি অস্থায়ী বড় স্ক্রিন টিভি ধ্বংস হয়ে গিয়েছে।

উদ্বোধনী ম্যাচ হবে স্থানীয় সময় ১ জুন, সন্ধ্যায়। সেই সময়েও আছে বজ্রপাতসহ বৃষ্টির শঙ্কা। ৪২ শতাংশ বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা রয়েছে। এছাড়া বজ্রপাতের সম্ভাব্যতা দেখানো হয়েছে ৩৮ শতাংশের বেশি। একইসঙ্গে ঝোড়ো বাতাসের উপস্থিতি নিয়েও আছে প্রশ্ন।

তবে পূর্বাভাসের দিকে তাকালে নিজেদের ম্যাচ নিয়ে কিছুটা স্বস্তি পেতেই পারে বাংলাদেশ। দশ দিনের ব্যবধানে ডালাসের প্রেইরি অঞ্চলের আবহাওয়ার অনেকটা উন্নতি হবে জানিয়েছে আবহাওয়া বিষয়ক একাধিক ওয়েবসাইট। সেই জায়গায় বরং নাতিশীতোষ্ণ আবহাওয়া আশা করা হচ্ছে।

ধারণা করা হচ্ছে, স্থানীয় সময় ৭ জুলাই দিনে প্রেইরির তাপমাত্রা থাকবে ৩১ ডিগ্রি সেলসিয়াস। সন্ধ্যায় ম্যাচ শুরু হতে হতে যা ২৭ ডিগ্রিতে নেমে আসতে পারে। রাতে শিশিরের প্রভাব থাকার প্রবল সম্ভাবনা রয়েছে। বৃষ্টিপাতের খুব একটা সম্ভাবনা নেই। যদিও বাতাসে ৪৬ শতাংশ আর্দ্রতা আশা করছেন আবহাওয়াবিদরা।

Check Also

অলিম্পিকে মশাল বহন করলেন বিটিএস তারকা জিন

  শেরপুর নিউজ ডেস্ক: প্যারিসে অলিম্পিকের পর্দা উঠছে আগামী ২৬ জুলাই। এ উপলক্ষে অলিম্পিকের মশাল …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

four × 1 =

Contact Us