সর্বশেষ সংবাদ
Home / স্বাস্থ্য / সারা দেশে ৫টি বার্ন ইউনিট চালু হবে : স্বাস্থ্যমন্ত্রী

সারা দেশে ৫টি বার্ন ইউনিট চালু হবে : স্বাস্থ্যমন্ত্রী

শেরপুর নিউজ ডেস্ক: স্বাস্থ্য ও পরিবারকল্যাণমন্ত্রী ডা. সামন্ত লাল সেন জানিয়েছেন, রাজশাহীতে একটিসহ সারা দেশে পাঁচটি বার্ন ইউনিট চালু করা হবে। এ ইউনিটগুলো চালু হলে জনগণের বেশ উপকার হবে বলে তিনি আশা প্রকাশ করেন। গতকাল সোমবার সকালে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালের সভাকক্ষে রাজশাহী মেডিকেল বিশ^বিদ্যালয়ের (রামেবি) ভাইস চ্যান্সেলর, নওগাঁ, বগুড়া, পাবনা ও সিরাজগঞ্জ মেডিকেল কলেজের পরিচালক, অধ্যক্ষ ও বিভাগীয় প্রধানদের সঙ্গে এক মতবিনিময় সভা শেষে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে স্বাস্থ্য ও পরিবারকল্যাণমন্ত্রী এ তথ্য জানান।

এর আগে স্বাস্থ্যমন্ত্রী রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের বিভিন্ন ইউনিট ঘুরে দেখেন। হাসপাতালটি অন্যান্য মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের চেয়ে পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন মন্তব্য করে তিনি সাংবাদিকদের কাছে সন্তোষ প্রকাশ করেন। অন্যান্য মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মতো রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালেও সেবা নিতে আসা রোগীদের ফ্লোরে থেকে সেবা নিতে হয় উল্লেখ করে তিনি বলেন, ‘এ সমস্যা একবারে সমাধান করা সম্ভব না। যতক্ষণ না আমরা প্রান্তিক জনগোষ্ঠীর দোরগোড়ায় চিকিৎসাসেবা পৌঁছে দিতে পারছি, ততক্ষণ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালগুলোতে রোগীর চাপ কমবে না। তবে আমরা দেশের চিকিৎসাসেবা শতভাগ উন্নত করতে না পারলেও কিছুটা উন্নত করার চেষ্টা করছি।’

মন্ত্রী বলেন, ‘রাজশাহীতে একটি জেলা হাসপাতাল আছে, সেটা খালি পড়ে থাকে। আমরা চেষ্টা করব এটাকে সচল করার। তাহলে হয়তো-বা কিছুটা হলেও এই হাসপাতালের ওপর চাপ কমবে।’ হাসপাতালগুলোতে জনবলের ঘাটতি রয়েছে উল্লেখ করে তিনি বলেন, জনবলের ঘাটতি নিয়েও আমরা কাজ করছি। তবে খুব তাড়াতাড়ি জনবল সংকটের সমাধান হবে বলে তিনি আশা করেন।

‘চিকিৎসকের ঘাটতি থাকা সত্ত্বেও অনেক চিকিৎসককে ওএসডি করে রাখা হয়েছে, এ বিষয়ে সরকারের পদক্ষেপ কী?’ সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নের জবাবে স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, ‘খুব তাড়াতাড়ি এর সমাধান হবে, আমরা এটা নিয়ে কাজ করছি।’

মতবিনিময় সভায় জানানো হয়, রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নতুন একটি আইসিইউ খোলা হলো। এই হাসপাতালের বহির্বিভাগে প্রতিদিন গড়ে ৪ হাজার ৪৭৫ রোগী চিকিৎসা নেয়। প্রতিদিন গড়ে অপারেশন করা হয় ১৩৮ রোগীর। মতবিনিময় সভায় স্বাস্থ্য প্রতিমন্ত্রী রোকেয়া সুলতানাসহ স্বাস্থ্য বিভাগের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

এদিকে, রামেক হাসপাতালে ইন্টার্ন চিকিৎসকদের দৌরাত্ম্য ও সাংবাদিক প্রবেশে বাধা দেওয়ার বিষয়ে এক প্রশ্নে স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, ‘এ রকম যদি কারও কাছে কোনো অভিযোগ থাকে, তাহলে বলবেন সেটা আমরা দেখব।’

সম্প্রতি হাসপাতালে ইন্টার্ন চিকিৎসকের কাছে রোগীর স্বজনের নির্যাতনের প্রসঙ্গ তুললে মন্ত্রী বলেন, ‘ওটার ব্যাপারে আমি জানি না। হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ সেটা দেখবে।’

Check Also

ঈদ পরবর্তী স্বাস্থ্যঝুঁকি এড়াতে

ড. খালেদা ইসলাম: ঈদ আসে, ঈদ যায়। আর এই মধ্যবর্তী সময়ে রেখে যায় সামান্য পরিবর্তনের …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

one + 11 =

Contact Us