সর্বশেষ সংবাদ
Home / দেশের খবর / বিমানের আন্তর্জাতিক ফ্লাইট পরিচালনায় প্রথমবার সবাই নারী

বিমানের আন্তর্জাতিক ফ্লাইট পরিচালনায় প্রথমবার সবাই নারী

শেরপুর নিউজ ডেস্ক: বিশ্ব নারী দিবসে প্রথমবারের মতো একটি আন্তর্জাতিক ফ্লাইট কেবল নারীদের দিয়ে পরিচালনা করবে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইনস। সে ফ্লাইটটির পাইলট থেকে শুরু করে গ্রাউন্ড স্টাফ সবাই থাকবেন নারী।

শুক্রবার (৮ মার্চ) বিশ্ব নারী দিবস উপলক্ষে ঢাকা-দাম্মাম রুটের বিজি-৩৪৯ ফ্লাইটটি পরিচালিত হবে নারীদের দিয়ে।

বিমান সূত্র জানায়, ফ্লাইটটির ক্রুদের ব্রিফিংও করবেন বিমানের নারী ফ্লাইট ব্রিফিং কর্মকর্তা।

বেলা আড়াইটায় ফ্লাইটটি হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে দাম্মামের উদ্দেশে ছেড়ে যাবে। ফ্লাইটটি পরিচালনা করবেন ক্যাপ্টেন আলিয়া মাননান ও ফার্স্ট অফিসার ফারিহা তাবাসসুম।

রাষ্ট্রায়ত্ব বিমান সংস্থাটির কর্মকর্তারা বলছেন, বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইনসে পুরুষ কর্মকর্তা-কর্মচারীদের সঙ্গে সমানভাবে দায়িত্ব পালন করছেন নারী কর্মকর্তা-কর্মচারীরা। এবার বিমান বাংলাদেশ তার নারী কর্মীদের দক্ষতা ও পেশাদারত্বের প্রতি সম্মান দেখিয়ে হাতে নিয়েছে এক ব্যতিক্রমী উদ্যোগ।

বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইনসের এমডি ও সিইও শফিউল আজিম জানিয়েছেন, সরকার নারীদের ক্ষমতায়নে বিশেষভাবে গুরুত্ব দিচ্ছে। বিমান প্রতিষ্ঠার শুরু থেকেই পুরুষ কর্মীদের পাশাপাশি নারীরাও দক্ষতার সঙ্গে কাজ করে যাচ্ছেন। বিমান নারীদের সুষ্ঠু ও সুন্দর কর্মপরিবেশ নিশ্চিত করে। তাই আগামী ৮ মার্চ নারী দিবসে ঢাকা-দাম্মাম রুটের বিজি-৩৪৯ ফ্লাইটটি পরিচালিত হবে নারীদের দিয়ে।

বিমানের মানবসম্পদ বিভাগ সূত্র জানায়, বিমানের সর্বস্তরে নারীদের অংশগ্রহণ রয়েছে। প্রতিষ্ঠানটির মহাব্যবস্থাপক প্রশাসন, মহাব্যবস্থাপক জনসংযোগ, প্রধান চিকিত্সা কর্মকর্তা, মহাব্যবস্থাপক গ্রাহক সেবা নারী। বিমানে রয়েছে ১৫ জন অভিজ্ঞ নারী পাইলট যা পুরুষ ও নারী পাইলটদের আন্তর্জাতিক গড় ৬ শতাংশ এর প্রায় দ্বিগুণ (১০.৪)। বিমানে রয়েছে প্রশিক্ষিত ও দক্ষ ৩৪৫ জন নারী কেবিন ক্রু। এছাড়া গ্রাউন্ড স্টাফ, নারী প্রকৌশলী, নারী প্রকৌশল ইন্সটাক্টরসহ বিমানের সকল শাখায় রয়েছে নারী কর্মকর্তা ও কর্মচারী।

জানতে চাইলে বিমান বাংলাদেশের মহাব্যবস্থাপক (জনসংযোগ) তাহেরা খন্দকার বলেন, ‘বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইনসে পুরুষ কর্মকর্তা-কর্মচারীদের সঙ্গে সমান ভাবে দায়িত্ব পালন করছে নারীরা। কয়েকটি ক্ষেত্রে পুরুষের চেয়ে এগিয়ে আছে নারীরা। স্মার্ট এয়ারলাইন্স হিসেবে বিমানকে গড়ে তোলার ভিশন বাস্তবায়নে নারী কর্মকর্তা-কর্মচারীরাও উল্লেখযোগ্য অবদান রাখছে। বিমানের নারী পাইলট, কেবিন ক্রু, ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাসহ সর্বস্তরের নারীরা সমাজের সকল নারীদের অনুপ্রেরণা যোগাচ্ছে।’

Check Also

সমৃদ্ধ ও স্মার্ট ভবিষ্যৎ নির্মাণে একযোগে কাজ করার আহ্বান অর্থ প্রতিমন্ত্রীর

শেরপুর নিউজ ডেস্ক: প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে সমৃদ্ধ স্মার্ট ভবিষ্যৎ নির্মাণে একযোগে কাজ করার আহ্বান …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

three + eleven =

Contact Us